ওজমা প্রকল্প

লেখক :- অনির্বাণ অহদেম

SETI (the search for extraterrestrial intelligence) মহাবিশ্বের অন্য জায়গায় বুদ্ধিমান জীবন আবিষ্কারের একটি বৈজ্ঞানিক প্রচেষ্টা, এই প্রতিষ্ঠানের প্রাথমিক কাজ মাইক্রোওয়েভ রশ্মি ব্যাবহার করে ভিনগ্রহে প্রাণের উপস্থিতি নির্ণয় করা।

SETI এর প্রথম প্রকল্প হচ্ছে ‘ওজমা প্রজেক্ট’। ১৯৬০ সালে জ্যোতির্নিজ্ঞানী ফ্রাংক ড্রেক “এপসাইলন ইরিডিন” এবং “টাউসেটি” নামক দুটো তারাকে লক্ষবস্তু করেন। এই দুইটি তারার বৈশিষ্ট্য, আকার,আকৃতি প্রায় সূর্যের মতোই। তারা দুটো সূর্য থেকে যথাক্রমে ১১ এবং ১২ আলোকবর্ষ দূরে অবস্থিত। ড্রেকের ধারণা ছিলো যদি এই তারা দুটোতে বুদ্ধিমান প্রাণী থেকে থাকে তবে তারা কী সৌরজগত কিংবা পৃথিবীর বুদ্ধিমান প্রাণীদের উদ্দেশ্যে কোন বার্তা প্রেরণ করছে? যদি বার্তা প্রেরণ করে থাকে সেই বার্তা গ্রহণ করার জন্য ওঁত পেতে থাকতে হবে। আর এই ওঁত পেতে থাকার প্রকল্প হলো ‘ওজমা’ প্রজেক্ট।
এরজন্য যুক্তরাষ্ট্রের ওয়েস্ট ভার্জেনিয়া রাজ্যের গ্রীণ ব্যাঙ্কে অবস্থিত ন্যাশনাল রেডিও অ্যস্ট্রোনমি অবজারভেটরির ২৬ মিটার ব্যাসবিশিষ্ট শক্তিশালী রেডিও টেলিস্কোপটি কাজে লাগান। কিন্তু দুঃখের বিষয় হলো এই প্রকল্প থেকে কোন “সংকেত” ধরা পরলো না।তথ্যসূত্র:- https://www.google.com/url?url=https://en.m.wikipedia.org/wiki/Project_Ozma&rct=j&sa=U&ved=2ahUKEwiai9iks9faAhUKK48KHV_lAE8QFjAAegQIBxAB&q=ozma+project&usg=AOvVaw3yCX3uPDNAlnc2CERQJXeZ

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.